,
সংবাদ শিরোনাম :

পীরগঞ্জ খাদ্য গুদামে গম ক্রয়ে দূর্নীতির তদন্ত অনুষ্ঠিত,ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা

নিজস্ব প্রতিবেদক : ঠাকুরগাওয়ের পীরগঞ্জ খাদ্য গুদামে গম ক্রয়ে দূর্নীতির অভিযোগ তদন্ত করেছে খাদ্য বিভাগ। গত বুধবার জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক আশ্রাফুজামান বিষয়টি সরেজমিন তদন্তে আসেন। তবে অভিযোগকারীদের না জানিয়েই এক তরফাভাবে তদন্ত করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগে জানা যায়, ২০১৫ সালে পীরগঞ্জ খাদ্য গুদামে সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে গম না কিনে সিন্ডিকেটের মাধ্যমে গম ক্রয় করা হয়। এর প্রতিবাদে একটি বাম রাজনৈতিক দল প্রতিবাদ সভা সহ প্রশাসনের বরাবরে স্বারকলিপি দেন। বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ দেন মুতর্জা সহ বেশ কয়েকজন কৃষক প্রতিনিধি। এরই প্রেক্ষিতে দীর্ঘদিন পর তদন্তে আসে জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক। এসময় দাপ্তরিক বিভিন্ন কাগজ পত্র দেখেন জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক এবং দাপ্তরিক কাগজে যেসব সমস্যা রয়েছে তা নিরশনের পরামর্শ দেন তিনি। তবে তদন্ত কালে অভিযোগকারীদের এ বিষয়ে অবহিত করা হয়নি। অভিযোগকারী মুর্তজা জানান, এ বিষতে তাকে আগাম কোন কিছু জানানো হয়নি। বিষয়টি ধামা চাপা দিতেই দীর্ঘদিন পর নামকা ওয়াস্তে তদন্ত করা হচ্ছে। অভিযোগকারীদের অনেকের দাবী জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক নয়, তাদের উপস্থিতিতে উচ্চ পর্যায়ের তদন্ত করা হলে বিষয়টি ধরা পড়বে। সুত্র জানায়, বিষয়টি ধামাচাপা দিতে ভারপ্রাপ্ত খাদ্য গুদাম কর্মকর্তা শাহিন রানা এরই মধ্যে দপ্তরের উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের সাথে যোগাযোগ করেন এবং নিষ্পত্তির জন্য একটি দায়সাড়া তদন্তের ব্যবস্থা করেন। এ বিষয়ে ভারপ্রাপ্ত খাদ্য গুদাম কর্মকর্তা শাহিন রানা বলেন, গম কেনা নিয়ে কি হয়, এটা ডিপার্টমেন্টের সবাই জানে। কাজেই এখানে আমার একার করার কি আছে। অভিযোগ যথা নিয়মে তদন্ত হয়েছে। জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক আশ্রাফুজ্জামান মুঠো ফোনে জানান, তদন্ত হয়েছে। অভিযোগকারীদের কাউকে উপস্থিত পাওয়া যায়নি। উল্লেখ্য, এবারো সিন্ডিকেটের মাধ্যমে ২৮ টাকা কেজি দরে ৩ হাজার ৪২০ টন গম কেনার অভিযোগ উঠেছে সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে।

print
(Visited 241 times, 1 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বশেষ সংবাদ