,
সংবাদ শিরোনাম :
» « পীরগঞ্জে স্বেচ্ছাসেবক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত» « পীরগঞ্জে মশক নিধন ও পরিচ্ছন্নতা সপ্তাহ উপলক্ষে র‌্যালী» « বালিয়াডাঙ্গীর পাড়িয়া ইউনিয়নে জিল্লুর চেয়ারম্যান নির্বাচিত» « পীরগঞ্জে ছেলে ধরা সন্দেহে ব্রডব্যান্ড সংযোগ প্রদান কাজে নিয়োজিত কর্মীকে গন পিটুনি» « পীরগঞ্জে টিএন্ডটি রাস্তার সংস্কার কাজ শুরু» « পীরগঞ্জে পঞ্চগড় এক্্রপ্রেস ট্রেনের যাত্রা বিরতি চায় এলাকাবাসী» « জাতীয় নারী ফুটবল চ্যাম্পিয়নশীপে বাফুফের ষড়যন্ত্রের প্রতিবাদে ঠাকুরগাঁওয়ে বিক্ষোভ» « কাউকে গোনায় ধরেন না সানি লিওন» « গ্রামীণফোন ও রবির ব্যান্ডউইথ কমালো বিটিআরসি» « পীরগঞ্জে দুর্যোগ সহনীয় ঘড় নির্মান কার্যক্রম পরিদর্শন

আসছে ঈদ তাই উৎসবের মৌসুমে নিন ত্বকের যত্ন

ডেস্ক : আমরা সবাই চাই ঈদের দিনে আমাদের সবাইকে সুন্দর লাগুক। তবে সেটা করা এত সহজ নয়। রমজান মাসে আমাদের দীর্ঘ সময় না খেয়ে থাকতে হয় এবং খাবারে কিছুটা অনিয়ম দেখা দেয়। এক্ষেত্রে শরীরে কিছু পুষ্টি উপাদান এবং খনিজ উপাদানের অভাব দেখা দিতে পারে। আর শরীরে পুষ্টির অভাব দেখা দিলে এর প্রভাব পড়বে ত্বকেও। তাই সেহেরি এবং ইফতারে পুষ্টিকর খাবার খাওয়া অত্যন্ত জরুরি। এছাড়া গরমের সময় রোজা হওয়ায় শরীরে পানির ঘাটতি দেখা দিতে পারে। তাই ইফতারের সময় এবং পরে প্রচুর পানি ও পানিজাতীয় খাবার খেতে হবে। তাই ঈদের দিন নিজেকে সুন্দরভাবে উপস্থাপন করতে চাইলে, আগে থেকেই যত্ন নিতে হবে। পুরো রমজান মাসে কিছুটা বাড়তি যত্ন এবং সচেতন থাকলেই ত্বক সুন্দর রাখা সম্ভব।

কয়েকটি মাস্ক তৈরির উপায় বলা হল

কমলা : ভিটামিন সি সমৃদ্ধ ফল কমলা ত্বকের জন্যে বেশ উপযোগী। টাটকা কমলার খোসা ত্বকে ঘষে নেওয়া যেতে পারে। অথবা খোসা শুকিয়ে গুঁড়া করে সংরক্ষণ করলে দীর্ঘদিন ব্যবহার করা যায়। গুঁড়া করা খোসা, দুধ ও মধুর সঙ্গে মিশিয়ে মাস্ক ও স্ক্রাব তৈরি করে ব্যবহার করা যায়।

কলা : ত্বকে আর্দ্রতা জুগিয়ে নমনীয়তা ধরে রাখতে সাহায্য করে। তাছাড়া ত্বক পরিষ্কার রাখতেও সাহায্য করে এই ফল। একটি কলা ভালোভাবে চটকে নিয়ে সঙ্গে খানিকটা মধু এবং গুঁড়া করা ওটস মিশিয়ে নিতে হবে। ১৫ মিনিট পর অল্প দুধ দিয়ে মুখ ভিজিয়ে নিয়ে আলতোভাবে ঘষে পানি দিয়ে ভালোভাবে ধুয়ে নিতে হবে।

ময়দার ফেইস মাস্ক : গম, ছোলা, ডাল, ভুট্টা ইত্যাদি যে কোনো শস্যের তৈরি ময়দা ২ টেবিল-চামচ, এক চিমটি হলুদগুঁড়া এবং পরিমাণ মতো দুধ মিশিয়ে ঘন পেস্ট তৈরি করতে হবে। যাদের ত্বক তৈলাক্ত তারা এ মিশ্রণের সঙ্গে সামান্য লেবুর রস মেশাতে পারেন। মিশ্রণটি তৈরি করার পর পরিষ্কার মুখে ও গলায় লাগিয়ে ১৫ থেকে ২০ মিনিট অপেক্ষা করতে হবে। মাস্কটি শুকিয়ে গেলে হালকা হাতে স্ক্রাব করে ধুয়ে ফেলতে হবে।

গুঁড়ো দুধের ফেইস মাস্ক : এক চামচ গুঁড়ো দুধ, এক চামচ মধু এবং এক চামচ লেবুর রস একটি পরিষ্কার পাত্রে নিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে নিতে হবে। মুখ ও গলা ভালোভাবে পরিষ্কার করে মিশ্রণটি লাগিয়ে ১০ মিনিট অপেক্ষা করে ধুয়ে ফেলতে হবে।

শসা ও লেবুর রসের ফেইস মাস্ক : এক চামচ শসার রস ও এক চামচ লেবুর রস মিশিয়ে এই মাস্ক তৈরি করতে হবে। মাস্কটি মুখে ও গলায় লাগিয়ে ১৫ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে ধুয়ে ফেলতে হবে।কিছু টিপস :

ইফতারের সময় প্রচুর পানি পান করুন। বিশেষ করে পানিজাতীয় খাবার, ফল ও ফলের রস রাখা উচিত ইফতারের তালিকায়। আমাদের দেশে ইফতারে প্রচুর ভাজাপোড়া খাবার খাওয়ার অভ্যাস আছে, যা মোটেও স্বাস্থ্যের জন্য ভালো নয়। তাই এই অভ্যাসে পরিবর্তন আনতে হবে এবং পুষ্টিকর খাবার খেতে হবে।

ত্বক এই সময় শুষ্ক হয়ে যায়। তাই ত্বকে পানি ঝাপটা দেওয়া বেশ উপকারী। দিনে কয়েক বার মুখে পানি ঝাপটা দেওয়ার পরামর্শ দেন আফরোজা পারভিন।

ইফতারের পর বিশ্রাম নেওয়ার সময় মুখ ভালোভাবে ধুয়ে ঘরোয়া উপাদানে তৈরি মাস্ক বা ফেইস প্যাক ব্যবহার করা উচিৎ

বিভিন্ন ধরনের তাজা ফল, মধু, বেসন, হলুদ ইত্যাদি উপাদান দিয়ে ফেইসমাস্ক তৈরি করে ব্যবহার করা যেতে পারে। ঘরোয়া উপাদান ব্যবহারে ত্বকে কোনো ক্ষতিকর প্রভাব পড়ার সম্ভাবনা থাকে না তাই এ ধরনের মাস্ক নিরাপদ।

সঠিক খ্যাদ্যাভ্যাস এবং নিজের প্রতি যত্নশীল হলেই ঈদের সময় কাঙ্ক্ষিত সুন্দর ত্বক পাওয়া যাবে,

তথ্য ও ছবি : ইন্টারনেট

print

(Visited 247 times, 1 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বশেষ সংবাদ